সৈকত ছেয়ে গেছে সাগরলতায়

পর্যটক শুন্য কক্সবাজারের সৈকত ছেয়ে গেছে সাগরলতা। নির্জনতার সুযোগে সাগরলতা নগ্ন সৈকতে ছড়িয়ে দিচ্ছে সবুজের জাল। আর এ জালে রাশি রাশি বালুরাশি আটকে সৃষ্টি হচ্ছে বালিয়াড়ি। বার বার ঢেউ আছড়ে পড়ায় মাটির ক্ষয়রোধ এবং শুকনো উড়ন্ত বালুরাশিকে আটকে বড় বড় বালির পাহাড় বা বালিয়াড়ি তৈরির মূল কারিগর হল সাগরলতা। এখন আর ভীড় নেই, মানুষের কোলাহল নেই। প্রকৃতি এখন একাকী।

প্রকৃতি যেন প্রাণ ফিরে পেয়েছে। আমরা মানুষরা এক প্রকার জোর করেই নিজেদের ভালর জন্য প্রকৃতিকে ধংস করছি। গ্লোবাল ওয়ার্মিং এর জন্য দায়ি এই আমরা মানে মানব সভ্যতা। সমুদ্র পৃষ্ঠের উচ্চতা বৃদ্ধি, ঝড়, জলোচ্ছাস থেকে শুরু করে দূষিত বায়ুর জন্য, হাজার রকমের ব্যাধির জন্য দায়ি আমরাই।

করোনা ভাইরাস হয়ত অনেক মানুষের মৃত্যুর কারন হয়েছে। কিন্তু সারা বিশ্বের লকডাউন, কার্বণ নি:সরণ কমে যাওয়া, বায়ুর মান স্বাস্থকর হওয়া আমাদেরকে একটি মনে করিয়ে দিয়ে যাচ্ছে যে প্রকৃতির রুপ ঠিক কেমন হওয়া উচিত ছিল আর আমরা প্রকৃতির ঠিক কতটা ক্ষতি করেছি। প্রকৃতির প্রতি যত্ন নেয়ার ব্যাপারে আমরা সকলে যেন সচেতন থাকি।

Image may contain: plant, tree, outdoor and nature

courtesy – Defence Research Forum- DefRes

Check Also

৩০ মে পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ

করোনা ভাইরাসের কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটির মেয়াদ ৩০ মে পর্যন্ত নির্ধারণ করেছে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *